সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ০৬:১১ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ

অধিক লাভের স্বপ্ন দেখছেন সূর্যমুখী ফুল চাষি ও কৃষকেরা

রিপোটারের নাম / ৩২ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : বুধবার, ২ ফেব্রুয়ারী, ২০২২

অধিক লাভের স্বপ্ন দেখছেন বেলকুচি সূর্যমুখী ফুল চাষি ও কৃষকেরা


প্রতিনিধি

সিরাজগঞ্জ বেলকুচিতে সূর্যমুখী ফুল চাষে অধিক লাভের স্বপ্ন দেখছেন স্থানীয় কৃষকরো। গত বছর চাষের পর উৎসুখ কৃষক ফসল বদলিয়ে চলতি মৌসুমে ব্যাপক হারে সূর্যমুখী ফুলের চাষ করেছেন ।

 

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, বেলকুচি উপজেলার মেঘুল্লা, আমবাড়িয়াসহ বিভিন্ন স্থানে কৃষি জমিতে সূর্যমুখী ফুল হাসিমুখে সূর্যের হাসি ছড়াচ্ছে চারিদিকে। হলুদ ফুল আর সবুজ গাছের অপরূপ দৃশ্য। সূর্যমুখীর সৌন্দর্য দেখতে আশ পাশের বিভিন্ন স্থান থেকে দর্শনার্থীরা জমির পাশে ভিড় জমাচ্ছেন। কেউ কেউ আবার ফুলের সঙ্গে দাঁড়িয়ে আগত যুবক যুবতীদের ছবিও তুলতে দেখা যাচ্ছে।

জানা যায়, উপজেলা কৃষি অফিস থেকে বিনামূল্যে বীজ ও সার পেয়ে কৃষকেরা জমিতে সূর্যমুখী ফুলের চাষ শুরু করেছে। অল্প সময়ে কম পরিশ্রমে ফসল উৎপাদন ও ভালো দাম পাওয়া যায় সূর্যমুখী ফুল চাষে। আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে সূর্যমুখী ফুল থেকে বিপুল পরিমান আর্থিকভাবে লাভবান হবো।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কল্যাণ প্রসাদ পাল জানান, অত্র এলাকায় ব্যাপক হারে সূর্যমুখী ফুলের চাষ হয়ে আসছে। বেলকুচি উপজেলা থেকে প্রায়২/৩ শ কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে বীজ ও সার প্রদান করা হয়েছে। চলতি মৌসুমে কৃষকদের উদ্ধুদ্ধ করতে ৩ শত বিঘা জমিতে সূর্যমুখী চাষ করা হচ্ছে। নিয়ম অনুযায়ী একটি সারি থেকে আরেকটি সারির সঠিক দূরত্ব বজায় রেখে চাষ করলে বিপুল পরিমান লাভের সম্ভবনা রয়েছে । মাত্র ১৩০থেকে ১৪০ দিনের মধ্যে বীজ বপণ থেকে শুরু করে বীজ উৎপাদন করা সম্ভব।

প্রতি বিঘা জমিতে ৮ থেকে প্রায় ১০ মণ সূর্যমুখী ফুলের বীজ পাওয়া যাবে। কৃষকদের স্বাবলম্বী করতেই সূর্যমুখী ফুল চাষে উৎসাহিত করা হয়েছে। আগামীতে সূর্যমুখী ফুলের চাষ আরও বাড়বে বলে প্রত্যাশা করছি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ